×

ভারতে এবার অলিম্পিক্সের আসর! নীল নকশা তৈরি, জানালেন কেন্দ্রীয় ক্রীড়ামন্ত্রী

 
অনুরাগ অলিম্পিক্স

নয়াদিল্লি: অলিম্পিক্সের আসরে বেশ কয়েক বছর ধরেই দাপট দেখাচ্ছেন ভারতীয় অ্যাথলিটরা৷ বিশ্ব ক্রিড়ার এই বৃহত্তম মঞ্চ থেকে এসেছে সোনা, রুপো, ব্রোঞ্জ পদক৷ কিন্তু ভারতের মাটিতে কি কোনও দিন নিজেদের সেরাটা উজার করে দিতে পারবেন নীরজ চোপড়া, পিভি সিন্ধুরা? সেই জল্পনাই উস্কে দিলেন কেন্দ্রীয় ক্রিড়ামন্ত্রী অনুরাগ ঠাকুর৷ এক সাক্ষাৎকারে তিনি জানালেন, গ্রীষ্মকালীন অলিম্পিক্সের আয়োজন করতে প্রস্তুত ভারত৷ কিন্তু অলিম্পিক্স হয় প্রতি চার বছর অন্তর৷ ২০২৪ সালে অলিম্পিক্সের আসর বসবে প্যারিসে৷ তাহলে কোন বছরের জন্য বিড করবে ভারত? 

আরও পড়ুন- 'যেমন বাবা, তেমনই মেয়ে', মেসির সই করা জার্সি পেয়ে আপ্লুত ধোনী কন্যা জিভা

কেন্দ্রীয় মন্ত্রীর কথায়, ১৪ বছর পরে ২০৩৬ সালে অলিম্পিক্সের আয়োজন করতে চাইছে ভারত। তিনি জানিয়েছেন, ৩৬-এর অলিম্পিক্সের জন্য নীল নকশা তৈরি করে রেখেছেন তাঁরা। আন্তর্জাতিক অলিম্পিক্স কমিটির সামনে সেই প্রস্তাবই রাখা হবে। ভারত যে অলিম্পিক্স আয়োজনের দায়িত্ব পাবে, সে বিষয় আশাবাদী কেন্দ্র৷ 

এর আগে ১৯৮২ সালে এশিয়ান গেমস ও ২০১০ সালে কমনওয়েলথ গেমসের আসর বসেছিল ভারত। কিন্তু এখনও পর্যন্ত অলিম্পিক্স আয়োজনের দায়িত্ব পায়নি ভারত। তবে এবার ভারতে অলিম্পিক্সের আয়োজন করতে মরিয়া নয়াদিল্লি৷ ২০২৩ সালের সেপ্টেম্বর মাসে মুম্বইয়ে আন্তর্জাতিক অলিম্পিক্স কমিটির বৈঠক হওয়ার কথা৷ ওই বৈঠকেই অলিম্পিক্স নিয়ে নিজেদের পরিকল্পনা তুলে ধরবে ভারতীয় অলিম্পিক্স সংস্থা। তারা চাইছে, প্রধানমন্ত্রীর রাজ্য গুজরাতের আমদাবাদে অলিম্পিক্সের আয়োজন করতে। কারণ, এই শহরে যাবতীয় খেলার আয়োজনের বন্দোবস্ত রয়েছে।

একটি ইংরাজি সংবাদপত্রকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে কেন্দ্রীয় ক্রিড়া মন্ত্রী অনুরাগ ঠাকুর বলেন, ‘‘ভারত যদি জি২০ সম্মেলনে সভাপতিত্ব করতে পারে,তা হলে আমি নিশ্চিত, অলিম্পিক্সের আয়োজনও করতে পারবে। ২০৩২ সাল পর্যন্ত আয়োজক দেশ ঠিক করাই রয়েছে। তাই ২০৩৬ সালের জন্য আমরা আবেদন জানাব। অলিম্পিক্সের জন্য আমরা তৈরি।’’ তাঁর কথায়, ‘‘আমরা ইতিবাচক৷ না বলার কোনও জায়গাই নেই৷ আমরা পুরোপুরি তৈরি আছি। ভারতে খেলাধুলোর প্রচার ভাল ভাবেই হচ্ছে। আমার মনে হয়, এটাই সঠিক সময়। ভারত ধীরে ধীরে বিশ্বের অন্যতম শক্তিশালী দেশ হয়ে উঠছে। তা হলে খেলার ক্ষেত্রেই বা কেন পিছিয়ে থাকব?’’ তিনি সাফ জানান, ‘‘২০৩৬ সালের অলিম্পিক আয়োজনের জন্য আমরা সর্বতোভাবে ঝাঁপাব।’’

From around the web

Education

Headlines