×

ফের কি হামলার শিকার বন্দে ভারত? যাত্রীদের বড় অভিযোগ

 
বন্দে ভারত

মালদহ: পশ্চিমবঙ্গে বন্দে ভারত এক্সপ্রেসের উদ্বোধনের পরেই হামলার ঘটনা ঘটে। তা নিয়ে কার্যত বিজেপি বনাম তৃণমূল লড়াই হয়ে যায়। গেরুয়া শিবির থেকে দাবি তোলা হয়েছিল যে, বাংলা ভালো কিছুর যোগ্য নয়। এমনকি এও বলা হয়েছিল যে ভবিষ্যতে আর কোনও ভালো ট্রেন নাও পেতে পারে বাংলা। তবে রেল কর্তৃপক্ষ পরে জানায় যে, বাংলা নয় বিহার থেকে ট্রেনে হামলা হয়েছিল। এই নিয়ে মুখ পোড়ে বিজেপির। তবে এখন আবার এই ট্রেনে হামলার অভিযোগ উঠছে।

আরও পড়ুন: 'বাংলাকে অসম্মান করার জন্য ভুল বার্তা', বন্দে ভারত ইস্যুতে ক্ষুব্ধ মমতা

সোমবার হাওড়া থেকে বন্দে ভারত মালদহে ঢোকার মুখে পাথর ছোড়া হয় বলে অভিযোগ তুলেছেন যাত্রীদের একাংশ। যদিও অন্য অংশ মনে করছে যে, এই ঘটনা দু’ একদিন আগের হতে পারে। এদিকে রবিবারও একই অভিযোগ তুলেছিলেন যাত্রীরা। বিহারের বারসোই জংশনের কাছে পাথর ছোড়ার অভিযোগ তুলেছিলেন। যদিও রেলের তরফে সে কথা অস্বীকার করা হয়। কিন্তু মালদহের ঘটনা ঠিক কবেকার বা আদৌ সেখানে পাথর ছোড়া হয়েছে কিনা তা নিয়ে যথেষ্ট সন্দেহ দানা বাঁধছে। বেশ কয়েকজন যাত্রীর কথায়, রাত পেরিয়ে সকাল হলে জানলার কাচে দাগ দেখতে পাওয়া গিয়েছিল পাথর ছোড়ার। টিটিই, জিআরপি সকলে এসে কামরায় পরীক্ষা করছিল বলেও জানান হয়েছে।

কয়েকদিন আগেই বন্দে ভারতে হামলার ইস্যুতে মুখ খুলেছিলেন খোদ বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। দাবি করেন, বাংলাকে বদনাম করার চেষ্টা করা হচ্ছে। যদিও তা যে বরদাস্ত করা হবে না তাও স্পষ্ট করে দেন। তবে বিজেপিকেও কটাক্ষ করতে ছাড়েননি তিনি। আগের ঘটনা নিয়ে বলেন, বিহারের মানুষের ক্ষোভ থাকতেই পারে। আর বন্দে ভারত মানে হল একটা পুরনো ট্রেনকে রঙ করে নতুন করে দিয়েছে।

From around the web

Education

Headlines