×

পার্থ নন, কিংপিন সুবীরেশ! নবম - দশম নিয়োগ দুর্নীতিতে চার্জশিট লিখল CBI

 
সুবীরেশ

কলকাতা:  সিবিআই চার্জশিটি চাঞ্চল্যকর তথ্য৷ প্রাক্তন মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায় নন, এসএসসি নবম – দশম নিয়োগ কেলেঙ্কারির মূল পাণ্ডা সুবীরেশ ভট্টাচার্য। চার্জশিট এমনটাই উল্লেখ করল কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থা৷ চার্জশিটে যে ১২ জনের নাম উল্লেখ করা হয়েছে তার মধ্যে রয়েছেন শান্তিপ্রসাদ সিনহা, অশোক সাহার৷ তবে তাৎপর্যপূর্ণভাবে সেখানে নাম নেই পার্থর। কী ভাবে প্রভাব খাটিয়ে সুবীরেশ দুর্নীতি করেছিলেন, তা রীতিমতো চমকে দেওয়ার মত।

আরও পড়ুন- ডেঙ্গির ভয়াবহতা বাড়ছে, নবান্নে জরুরি বৈঠক


সিবিআই চার্জশিটে বলা হয়েছে, করোনাকালে লকডাউন পর্বে এসএসসি-র দফতর ছিল প্রায় ফাঁকা। সেই সময় চেয়ারম্যান সৌমিত্র সরকার ছিলেন ছুটিতে। ফাঁকা দফতরের সুযোগ নিয়ে আচার্য সদনেই ছাপা হয়েছিল জাল সুপারিশপত্র।


সিবিআই চার্জশিটে বলা হয়েছে, ২০১৬ সালের নবম-দশম নিয়োগ প্রক্রিয়ার তত্বাবধানে ছিলেন সুবীরেশ। সেই সুবাদেই আচার্য সদনে ঢোকেন তিনি। 
যে সংস্থার ওপর ওএমআর শিট স্ক্যান করার দায়িত্ব দেওয়া হয়েছিল, তারা ওএমআর শিট দেখার পর পরীক্ষার্থীদের লিখিত পরীক্ষার নম্বরসহ সিডি সুবীরেশের হাতে তুলে দিয়েছিলেন৷ সেই সিডি কোনও দিন ওয়েবসাইটে আপলোডই করা হয়নি। এমনকি আজ পর্যন্ত সেই সিডির হজিশ মেলেনি৷ ইতিহাসের প্রশ্নপত্রে যে ভুল ছিল, তা খতিয়ে দেখার জন্য এসএসসি-কে অনুরোধ করেছিলেন পরীক্ষার্থীরা। সেই সংশোধিত প্রশ্নপত্রও ওয়েবসাইটে আপলোড করা যায়নি৷ সেখানে বাধা ছিলেন সুবীরেশ।


তদন্তের পর সিবিআইয়ের দাবি, লকডাউনপর্বে  চেয়ারম্যানের অনুপস্থিতিকেই কাজে লাগিয়েছিলেন সুবীরেশ৷ দুর্নীতির দায় তাঁর ঘাড়ে চাপানোর ছক কষেছিলেন তিনি৷ এমনকী পরীক্ষার্থীরা যাতে অন্য কারও নম্বর দেখতে না পান সেই ব্যবস্থাও করে রাখা হয়েছিল ওয়েবসাইটে। আড়ালে ওএমআর শিট ও ইন্টারভিউর নম্বর ইচ্ছা মতো বদলে দিয়েছিলেন সুবীরেশ।


 

From around the web

Education

Headlines