Aajbikel

ইজরায়েলি কূটনীতিককে ছুরিকাঘাত চিনে! দুই রাষ্ট্রের সম্পর্কে চিড়

 | 
knife

বেজিং: হামাস-ইজরায়েল যুদ্ধে চিন এখনও পর্যন্ত প্রত্যক্ষ অবস্থান নেয়নি। বেজিং সরকারের পক্ষ থেকে হামাস বাহিনীর নিন্দা করা হয়নি বলে দাবি করেছিলেন খোদ চিনে নিযুক্ত ইজরায়েলি রাষ্ট্রদূত। এই মন্তব্যের পরেই চাঞ্চল্যকর ঘটনা ঘটে গিয়েছে চিনে। ছুরি দিয়ে কোপানো হয়েছে ইজরায়েলি কূটনীতিককে। তিনি এখন হাসপাতালে চিকিতসাধীন। এই ঘটনায় দুই দেশের সম্পর্কের মধ্যে বিরাট প্রভাব পড়বে বলেই ধারণা করা হচ্ছে। 

ইজরায়েলি বিদেশ মন্ত্রকের তরফে এই ঘটনার কথা স্বীকার করে বলা হয়েছে, চিনের রাজধানী বেজিংয়ে এই ঘটনা ঘটেছে। যদিও আহত কূটনীতিক এখন স্থিতিশীল অবস্থায় আছেন বলেই জানানো হয়েছে। তবে তারাও চিনের এই মুখে কুলুপ আঁটার বিষয়টি নিয়ে ক্ষুব্ধ। এই ঘটনা সম্পর্কেও কোনও প্রতিক্রিয়া বেজিং সরকারের পক্ষ থেকে আসেনি বলে খবর। ইজরায়েল-হামাস চলতি সংঘাতের জন্যই এমন ঘটনা ঘটেছে কিনা তা স্পষ্টভাবে বোঝা না গেলেও, দুই দেশের সম্পর্ক যে উত্তেজক মোড়ে চলে যাবে তা পরিষ্কার। প্রসঙ্গত, এখনও পর্যন্ত কোনও ব্যক্তি বা গোষ্ঠী এই হামলার দায় স্বীকার করেনি।

উল্লেখ্য, ইরান থেকে শুরু করে কাতার, লেবানন, ইরাক, সিরিয়া তারা হামাস বাহিনীর 'সঙ্গে আছে' বলে ঘোষণা করেছে। ইজরায়েলের নিন্দা করে বলা হয়েছে, প্যালেস্তাইন রাষ্ট্রের জন্য যে কোনও প্রতিরোধে তাদের সমর্থন থাকবে। এখানে উল্লেখ করা প্রয়োজন যে, আরব দেশগুলির একাংশের হামাসকে সমর্থন করা কোনও অবাক হওয়ার বিষয় নয়। কারণ তারা শুরু থেকেই ইজরায়েলি ‘আগ্রাসনে’র বিরোধিতা করে এবং প্যালেস্তাইনের জন্য গলা ফাটায়। তবে বাহরিন, সৌদি আরব আমিরশাহি, সুদান, মরক্কোর মতো আরব দেশ আপাতত ইজরায়েলের বিরোধিতায় কোনও বার্তা দেয়নি। 

Around The Web

Trending News

You May like