×

মাতৃহারা প্রধানমন্ত্রী, কাঁপা হাতে মাকে কাঁধে নিলেন নমো, গান্ধীনগরে শেষকৃত্য সম্পন্ন হীরাবেনের

 
মোদী

আমদাবাদ: প্রয়াত প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর মা হীরাবেন মোদী৷ শুক্রবার মায়ের প্রয়াণের খবর নিজেই টুইট করে জানান প্রধানমন্ত্রী। হীরাবেন মোদীর বয়স হয়েছিল ১০০ বছর। এদিন টুইট করে প্রধানমন্ত্রী লেখেন, ‘‘সুন্দর একটা শতাব্দী শেষে ঈশ্বরের চরণে বিশ্রাম নিতে গিয়েছেন মা৷’’ 

আরও পড়ুন- এইমস থেকে ছাড়া পেলেন নির্মলা, কী হয়েছিল তাঁর


মায়ের মৃত্যুর খবর পেয়েই পূর্বপরিকল্পিত যাবতীয় কর্মসূচি বাতিল করে আমদাবাদে পৌঁছন নরেন্দ্র মোদী। কাঁপা কাঁপা হাতে মায়ের নিথর দেহ কাঁধে তুলে ভাইয়ের বাড়ি থেকে বেরন তিনি। দৃষ্টি নীচের দিকে একেবারে স্থির। তাঁর পাশে এবং পিছনে গোটা পরিবার৷ ততক্ষণে চলে এসেছেন আত্মীয়স্বজনরাও৷ মায়ের শেষযাত্রায় কাঁধ দেন প্রধানমন্ত্রীর ভাইও।

হীরাবেনের দেহ বাড়ি থেকে বার করার পর একটি শববাহী গাড়িতে তোলা হয়। সেই গাড়িতে ওঠেন খোদ প্রধানমন্ত্রী মোদী। এর পর হীরাবেনের দেহ নিয়ে আমদাবাদ থেকে গান্ধীনগরের উদ্দেশ্যে রওনা দেয় গাড়ি। গান্ধীনগরেই তাঁর শেষকৃত্য সম্পন্ন হয়৷ নিজের হাতে শেষকৃত্য সম্পন্ন করেন নমো৷


 

গত মঙ্গলবার আচমকা অসুস্থ হয়ে পড়েন হীরাবেন৷ বুধবার তাঁকে ইউএন মেহতা ইনস্টিটিউট অফ কার্ডিওলজি অ্যান্ড রিসার্চ সেন্টারের মতো সুপার স্পেশ্যালিটি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। তাঁর ঠিক কী হয়েছিল তা হাসপাতালের তরফে জানানো হয়নি। মায়ের অসুস্থতার খবর পেয়েই ছুটে এসেছিলেন প্রধানমন্ত্রী৷ মাের সঙ্গে ঘণ্টাখানেক সময়ও কাটান তিনি৷ বৃহস্পতিবার হাসপাতালের তরফে বলা হয়েছিল, হীরাবেনের শারীরিক অবস্থা স্থিতিশীল৷ কিন্তু শুক্রবার ভোর সাড়ে তিনটে নাগাদ শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি।



হীরাবেনের মৃত্যুতে শোক প্রকাশ করেন রাষ্ট্রপতি দ্রৌপদী মুর্মু, কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ-সহ দেশের বিভিন্ন রাজনৈতিক নেতারা৷ প্রধানমন্ত্রীর মায়ের প্রয়াণে শোকবার্তা প্রকাশ করেছেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ও। তিনি টুইট করে বলেন, ‘‘প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর মা শ্রদ্ধেয়া হীরাবেন মোদীর প্রয়াণে আমি গভীরভাবে শোক প্রকাশ করছি। শতায়ু হীরাবেন ছিলেন ভালোবাসা, ধৈর্য ও আস্থার প্রতীক। তিনি শিশুদের অত্যন্ত স্নেহ করতেন। আমি শোকাহত নরেন্দ্র মোদীজিকে আমার আন্তরিক সমবেদনা জানাচ্ছি।’’

হীরাবেনের প্রয়াণে শোক প্রকাশ করে টুইট করেছেন রাষ্ট্রপতি দ্রৌপদী মুর্মু৷ তিনি লিখেছেন, ‘‘প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর মা হীরাবেনের ১০০ বছরের সংগ্রামময় জীবন ভারতীয় আদর্শের প্রতীক...। ওঁর আত্মার শান্তি কামনা করি। পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানাই।’’ কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ টুইটে লিখেছেন, ‘‘মা-ই হলেন জীবনের প্রথম বন্ধু ও শিক্ষক। তাঁকে হারানো নিঃসন্দেহে সবচেয়ে বড় যন্ত্রণার।’’ “মায়ের শূন্যতা পূরণ করা অসম্ভব,” এ লিখলেন প্রতিরক্ষা মন্ত্রী রাজনাথ সিং।



 

From around the web

Education

Headlines