×

নয়া প্রেসিডেন্টের শপথগ্রহণের পরেই ব্রাজিলের তাণ্ডব বলসোনারো অনুগামীদের, নিন্দা মোদীর

 
মোদী

নয়াদিল্লি: রাষ্ট্রপতি নির্বাচন ঘিরে শুরু থেকেই উত্তপ্ত ছিল ব্রাজিল। এই নির্বাচনে লুলা দা সিলভার কাছে হেরে যান বলসোনারো। এরপর থেকেই উত্তেজনা বাড়তে থাকে দেশে। হালে নয়া রাষ্ট্রপতির শপথগ্রহণ অনুষ্ঠানের এক সপ্তাহ পরে জায়গায় জায়গায় তাণ্ডব চালিয়েছে বলসোনারো অনুগামীরা। এই ঘটনায় এবার মুখ খুললেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। তিনি জানান, এই হামলার ঘটনা ব্রাজিলের গণতন্ত্রকে আঘাত করে।

আসলে বলসোনারো প্রথম থেকেই দাবি করে এসেছিলেন যে, রাষ্ট্রপতি নির্বাচনে কারচুপি হয়েছে। গোটা প্রক্রিয়া খারিজ করে দেওয়ার দাবি তুলেছিলেন তিনি কিন্তু তার কিছুই হয়নি। এমনকি নতুন প্রেসিডেন্টের শপথগ্রহণ অনুষ্ঠানও আটকানো যায়নি। যদিও সেই অনুষ্ঠানে প্রথা ভেঙে অনুপস্থিত ছিলেন ব্রাজিলের প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট। তবে নয়া প্রেসিডেন্ট লুলার শপথগ্রহণের পর ব্রাজিলের একাংশ জুড়ে তাণ্ডব করা হয়েছে। প্রেসিডেন্ট ভবন, কংগ্রেস ও সুপ্রিম কোর্টে বলসোনারোর অনুগামীরা তাণ্ডব চালিয়েছে বলেই অভিযোগ। বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ জিনিসপত্র চুরি করেছে হামলাকারীরা বলেও দাবি উঠছে। এই নিয়ে মুখ খুলেছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী।

ব্রাজিলের প্রাক্তন প্রেসিডেন্ট বলসোনারোর সঙ্গে নরেন্দ্র মোদীর ভালোই সম্পর্ক ছিল। তাই এই প্রেক্ষিতে হামলার ঘটনা নিয়ে মোদীর মুখ খুলে খুব গুরুত্বপূর্ণ বলে মনে করছে আন্তর্জাতিক মহলের বিশ্লেষকরা। কিন্তু ঠিক কী বলেছেন দেশের প্রধানমন্ত্রী? টুইট করে তিনি লেখেন, ''ব্রাজিলের গণতন্ত্রের প্রতীকরূপী ভবনগুলিতে যে হামলার ঘটনা ঘটেছে তা নিয়ে চিন্তিত। দেশের গণতন্ত্রের ঐতিহ্যকে সম্মান জানানো উচিত সকলেরই। ব্রাজিল প্রশাসনের প্রতি আমাদের পূর্ণ সমর্থন রয়েছে।'' প্রসঙ্গত, বামপন্থী নেতা লুলা দা সিলভা মোদীর শুভেচ্ছা বার্তাও পেয়েছিলেন জয়ের পর।

From around the web

Education

Headlines