Aajbikel

মেয়ে বলিউড ‘কুইন’, দিনে ৭-৮ ঘণ্টা মাঠে-ঘাটে কাজ করেন কঙ্গনার মা! কেন এত অভাব তাঁর?

 | 
কঙ্গনা

মুম্বই: বলিউডে কোনও গডফাদার ছিল না তাঁর৷ অভিনয় জগতে জমি পাকা করেছেন নিজের অভিনয় দক্ষতায়৷ হয়ে উঠেছেন বলিউডের ‘কুইন’৷ তবে শুধু অভিনয় দক্ষতার জন্যেই নয়, এই উপাধি বিতর্কের কারণেও বটে৷ 

আরও পড়ুন- কেমন কাটল স্বরা-ফাহাদের ফুলসজ্জা? বিশেষ রাতের ছবি পোস্ট করলেন অভিনেত্রী


বলিউডে বরাবরই ঠোঁটকাটা হিসাবে পরিচিত কঙ্গনা৷ তাঁর স্পষ্ট কথার জেরেই যত বিতর্কের উৎপত্তি৷ আবারও সমাজমাধ্যমে বিতর্কের ঝড় তুললেন তিনি৷ সম্প্রতি নেটপাড়ায় ভাইরাল হয়েছে একটি ছবি৷ যেখানে দেখা গিয়েছে মাঠে বসে চাষ করছেন অভিনেত্রীর মা৷ এই বিষয়ে প্রশ্ন করতেই বলিউডের ‘মুভি মাফিয়া’কে কটাক্ষ করলেন ‘গ্যাংস্টার’ অভিনেত্রী। 


একটি সরকারি স্কুলে সংস্কৃতের শিক্ষিকা ছিলেন  কঙ্গনা রানাওয়াতের মা আশা রানাওয়াত। মেয়ে সফল অভিনেত্রী হওয়া সত্ত্বেও, খুব সাদামাটাভাবে জীবন অতিবাহিত করেন তিনি। তাঁর মায়ের জীবনধারণে যে কোনও পরিবর্তন  আসেনি, সে কথা জানিয়েছেন কঙ্গনা নিজেও। মায়ের বৈচিত্রহীন জীবনের ছবিও পোস্ট করেছেন অভিনেত্রী৷


সম্প্রতি সমাজমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে এক মহিলার চাষবাসের ছবি। জানা যায়, ওই মহিলা অন্য কেউ নন, বলিউড অভিনেত্রী কঙ্গনা রানাউতের মা। বলিউডের সফল অভিনেত্রী হওয়ার পাশাপাশি শুরু করেছেন ছবি প্রযোজনার কাজেও। তাঁর মা কিনা কাজ করছেন মাঠে-ঘাটে! এমন কথা জেনে হতবাক নেটাগরিকরা। অভিনেত্রীর মায়ের সারল্যের প্রশংসাও করেছেন তাঁরা। কিন্তু, কেন চাষবাস করে দিন কাটান বলিউড কুইনের মা? অনুরাগীদের কৌতূহল মেটাতে সোশ্যাল মিডিয়ায় কঙ্গনা লিখেছেন, ‘‘আমার মা আমার টাকায় ধনী নন। আমি রাজনীতিক, কূটনীতিক, ব্যবসায়ী পরিবারের মেয়ে। কিন্তু আমার মা গত ২৫ বছর ধরে একটি সরকারি স্কুলে সংস্কৃত পড়ান।’’ তিনি আরও লেখেন, ‘‘মুভি মাফিয়াদের বুঝতে হবে, আমি কার থেকে এই ব্যক্তিত্ব পেয়েছি। এই শিক্ষার কারণেই আমি যার-তার বিয়েতে নাচতে পারি না।’’ 


এখানেই থামেননি কঙ্গনা। তিনি আরও লেখেন, ‘‘আমার মা দিনে ৭-৮ ঘণ্টা মাঠে কাজ করেন। উনি বাইরে খেতে যেতে পছন্দ করেন না, বিদেশে যান না, এমনকি, মুম্বইয়ে ছবির সেটে যেতেও পছন্দ করেন না। এগুলোর জন্য জোর করলে উল্টে আমাকেই বকাবকি করেন।’’ তিনি যে মায়ের শিক্ষাতেই শিক্ষিত, সে কথা বুঝিয়ে দিয়েছেন মণিকর্ণিকা: দ্য কুইন অফ ঝাঁসি’ খ্যাত অভিনেত্রী। তাঁর কথায়, ‘‘মুভি মাফিয়ারা আমাকে অহঙ্কারী মনে করে। আমার মা আমাকে নুন আর রুটি খেয়ে বাঁচতে শিখিয়েছেন, কিন্তু কারও কাছে হাত পাততে শেখাননি।  আমাকে নানা নামে ডাকেন মানুষ। অনেকে পাগলও বলেন। তার কারণ হয়তো আমি অন্য মেয়েদের মতো পরনিন্দা-পরচর্চা করি না।  এটা আমার অহঙ্কার না মূল্যবোধ?’’ প্রশ্ন কুইনের৷ 

সম্প্রতি বলিউডে প্রযোজনার কাজ শুরু করেছেন কঙ্গনা। ‘ইমার্জেন্সি’ ছবির খরচ জোগাতে নিজের সম্পত্তি বন্ধক রেখেছেন অভিনেত্রী৷ সমাজমাধ্যমে সে কথা নিজেই জানিয়েছেন তিনি। এ প্রসঙ্গে কঙ্গনা লেখেন, ‘‘আমি আমার রোজগারের শেষ কড়িটুকুও ছবি বানানোর জন্য লাগিয়ে দিয়েছি। এখন আমার কাছে আর কিচ্ছু নেই। কিন্তু যখন মাকে এ ভাবে প্রতিদিন কাজ করতে দেখি, তখন মনে হয় আমার তো সব কিছুই আছে। মুভি মাফিয়ারা আমার কী ক্ষতি করবে, আমি তো এখানে রাক্ষসদের তাড়াতে এসেছি, আমার আর কিছুই চাই না!’’ 

Around The Web

Trending News

You May like