×

সময়ের আগেই আসছে বর্ষা, ছুটির দিনেও বৃষ্টিতে ভিজবে কলকাতা

 
rain

কলকাতা: দিন কয়েক আগেই আইএমডি তথা আবহাওয়া দপ্তরের তরফ থেকে জানানো হয়েছিল চলতি বছরে তীব্র দাবদাহের হাত থেকে দেশবাসীকে মুক্তি দিতে অন্য বছরের তুলনায় বেশ কিছুটা সময় আগেই আন্দামান নিকোবর দ্বীপপুঞ্জ হয়ে ভারতে প্রবেশ করছে মৌসুমী বায়ু। আর এই মৌসুমী বায়ুর প্রভাবে স্বাভাবিকের থেকে বেশ কিছুদিন আগে থেকেই শুরু হবে বর্ষা। সেই সম্ভাবনাকে সমর্থন করেই আলিপুর আবহাওয়া দপ্তরের আধিকারিকদের একাংশ জানিয়েছেন আসানির জন্য দেশের অন্যান্য রাজ্যের মত এই রাজ্যেও আগাম শুরু হতে চলেছে বর্ষাকাল। মূলত তার জেরেই প্রাক বর্ষা উপলক্ষে সপ্তাহান্তে বজ্রবিদ্যুৎসহ বৃষ্টিপাতে ভিজবে কলকাতাসহ দক্ষিণবঙ্গের একাধিক জেলা। ঘূর্ণিঝড় আসানির প্রভাবে চলতি সপ্তাহের প্রথম থেকে কার্যত রোজই বৃষ্টিপাত হয়েছে কলকাতাসহ দক্ষিণবঙ্গের জেলাগুলিতে। শনিবার রাতেও কলকাতাসহ, উত্তর ২৪ পরগনা, দক্ষিণ ২৪ পরগনা, হাওড়া, নদীয়ার মতো একাধিক জেলায় বজ্রবিদ্যুৎসহ ঝড়বৃষ্টি হয়। সেই ধারা বজায় থাকবে আজও। অর্থাৎ সপ্তাহান্তে ছুটির আমেজ ভেস্তে দিতে রবিবারও ঝড় বৃষ্টির সম্ভাবনার কথা জানিয়েছেন আবহাওয়াবিদরা।

জানা যাচ্ছে রবিবার সকাল থেকে কলকাতার আকাশ থাকবে মেঘলা। আলিপুর আবহাওয়া দপ্তর সূত্রে খবর, রবিবারও বজ্রবিদ্যুৎ-সহ বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে কলকাতার পাশাপাশি বীরভূম, মুর্শিদাবাদ, নদীয়ার মতো দক্ষিণবঙ্গের একাধিক জেলাগুলিতে। অন্যদিকে লাগাতার বৃষ্টিপাতে কলকাতাসহ দক্ষিণবঙ্গের একাধিক জেলায় তাপমাত্রার পারদে ঘটেছে ছন্দপতন। শনিবার কলকাতার সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৩৩ ডিগ্রির আশেপাশে ঘোরাফেরা করেছে। অন্যদিকে বৃষ্টির পর কলকাতার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা এদিন ২৪ ডিগ্রির নিচে নেমে যায় বলে খবর। রবিবার শহরের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা ৩৪ ডিগ্রির আশেপাশে থাকবে বলে জানিয়েছেন আবহাওয়া দপ্তরের আধিকারিকরা এবং সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ২৬ ডিগ্রির কাছাকাছি থাকার সম্ভাবনা রয়েছে। তবে একা দক্ষিণবঙ্গ নয় সোমবার পর্যন্ত উত্তরবঙ্গের বিভিন্ন জেলাতেও ভারী বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে। উপরের দিকে অর্থাৎ পার্বত্য পাঁচটি জেলায় বিক্ষিপ্ত ভারী বৃষ্টিপাত হতে পারে এদিন,  সেই সঙ্গে ঘণ্টায় ৫০ কিলোমিটার বেগে ঝোড়ো হাওয়া বইতে পারে বলে জানিয়েছে হাওয়া অফিস। দক্ষিণ-পশ্চিম বাতাস শক্তিশালী হওয়ায় উত্তর-পূর্ব ভারতের বিভিন্ন রাজ্য এবং উত্তরবঙ্গে এই ভারী বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা তৈরি হয়েছে বলে জানা গিয়েছে। এই একই কারণে রবিবার পর্যন্ত সমুদ্র উত্তাল থাকবে বলে খবর। এর জেরে রবিবার পর্যন্ত মৎস্যজীবীদের সমুদ্রে যাওয়ার ক্ষেত্রে জারি হয়েছে নিষেধাজ্ঞা অন্যদিকে পর্যটকদের জন্যও জারি করা হয়েছে সতর্কবার্তা।

অন্যদিকে বর্ষাকাল প্রসঙ্গে আলিপুর আবহাওয়া দপ্তরের আবহাওয়াবিদদের একাংশ মনে করছেন, ঘূর্ণিঝড় আসানির প্রভাবে সময়ের কিছু আগেই রাজ্যে প্রবেশ করছে বর্ষাকাল। পরিস্থিতি অনুকূল থাকলে  আজ অর্থাৎ ১৫ মে আন্দামান সাগরে দক্ষিণ-পশ্চিম মৌসুমি বায়ুর পৌঁছানোর কথা। অন্যদিকে আন্দামান-নিকোবর দ্বীপপুঞ্জে দক্ষিণ-পশ্চিম মৌসুমি বায়ুর প্রবেশের নির্ধারিত দিন ঘোষণা করা হয়েছে ২২ মে।

From around the web

Education

Headlines