×

মুখ্যমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলে সাহায্যের অঙ্গীকার শিক্ষক ও শিক্ষাকর্মী সমিতির

করোনা পরিস্থিতিতে রাজ্যবাসীর স্বার্থে ত্রাণ তহবিল গড়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। দল-মত নির্বেশেষে হাত বাড়িয়েছে বহু সংগঠন। এই পরিস্থিতিতে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে কাজ করার সংকল্প নিল মাধ্যমিক শিক্ষক ও শিক্ষাকর্মী সমিতির (এসইটিএ) সদস্যরাও। সংগঠনের তরফে এপ্রিল মাসের প্রথম সপ্তাহেই মুখ্যমন্ত্রীর তহবিলে দেওয়া হবে অনুদান। এই সংকল্পে সাধ্যমতো এগিয়ে আসতে অনুরোধ করা হয়েছে সদস্যদেরও।
 


কলকাতা: করোনা পরিস্থিতিতে রাজ্যবাসীর স্বার্থে ত্রাণ তহবিল গড়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। দল-মত নির্বেশেষে হাত বাড়িয়েছে বহু সংগঠন। এই পরিস্থিতিতে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে কাজ করার সংকল্প নিল মাধ্যমিক শিক্ষক ও শিক্ষাকর্মী সমিতির (এসইটিএ) সদস্যরাও। সংগঠনের তরফে এপ্রিল মাসের প্রথম সপ্তাহেই মুখ্যমন্ত্রীর তহবিলে দেওয়া হবে অনুদান। এই সংকল্পে সাধ্যমতো এগিয়ে আসতে অনুরোধ করা হয়েছে সদস্যদেরও।


করোনা ভাইরাস কোভিড ১৯ মোকাবিলায় কেন্দ্র থেকে রাজ্য সরকার, সবার তরফেই একের পর এক পদক্ষপে করা হয়েছে। ইতিমধ্যে জারি হয়েছে লক ডাউন পরিস্থিতি। এই অবস্থায় একযোগে কাজ করার আহ্বান জানিয়েছে বিজেপি, সিপিএম, কংগ্রেসের মতো বিরোধী দলগুলিও। এক হয়ে কাজ করার ইচ্ছে প্রকাশ করেছে বিভিন্ন সংগঠনও। মাধ্যমিক শিক্ষক ও শিক্ষাকর্মী সমিতির তরফে সমিতির রাজ্য সভাপতি বিশ্বজিৎ পোদ্দার এবং সাধারণ সম্পাদক বিশ্বজিৎ মিত্র আহ্বান জানিয়েছেন সদস্যদের। রাজ্যের সমস্ত সদস্যদের উদ্দেশ্যে তাঁরা জানিয়েছেন, 'লক ডাউন পরিস্থিতিতে দিন আনে দিন খায় বা ওই ধরনের অসহায় মানুষেরর পাশে দাঁড়ানোর জন্য একটি তহবিল গঠন করেছি আমরা। তাতে কিছু অর্থদানের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। সামাজিক দায়বদ্ধতার কথা মাথায় রেখে সবাই মুক্ত হস্তে দান করুন।' এই বিষয়ে আরও তথ্যের জন্য যোগাযোগ করতে বলা হয়েছে সংশ্লিষ্ট জেলার সমিতির সম্পাদকের সঙ্গে। প্রয়োজনে মাধ্যমিক শিক্ষক ও শিক্ষাকর্মী সমিতির রাজ্য সভাপতি বা সম্পাদকের সঙ্গে যোগাযোগের পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। ৫ এপ্রিলের মধ্যে এই তহবিলে যত টাকা উঠবে, তা পরের দিন অর্থাৎ ৬ এপ্রিল মুখ্যমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলে দেওয়া হবে বলে জানানো হয়েছে সমিতির তরফে। 


ক্রমেই বেড়ে চলেছে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা। এই পরিস্থিতি রোখার জন্য সর্বদলীয় বৈঠকে সরকার ও বিরোধী একসঙ্গে কাজ করবে বলেই অঙ্গীকার করেছে। তাছাড়া জনগণের উদ্দেশ্যে মুখ্যমন্ত্রীর ত্রাণ তহবিলে সাহায্য করার আবেদন জানিয়েছে শিক্ষক শিক্ষাকর্মী শিক্ষানুরাগী ঐক্য মঞ্চও। মাধ্যমিক শিক্ষক ও শিক্ষাকর্মী সমিতিও দাঁড়িয়েছে রাজ্যবাসীর পাশে।
 

From around the web

Education

Headlines