×

এবার গ্রেফতার পার্থ ঘনিষ্ঠ মানসী গুছাইত, কোন অভিযোগে ধরল পুলিশ?

 
মানসী

কলকাতা:  এসএসসি নিয়োগ দুর্নীতি কাণ্ডে গ্রেফতার প্রাক্তন মন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের বর্তমান ঠিকানা প্রেসিডেন্সি জেল। অন্যদিকে আলিপুর সংশোধনাগারে রয়েছেন তাঁর ঘনিষ্ঠ বান্ধবী অর্পিতা মুখোপাধ্যায়৷ এবার গ্রেফতার আরও এক পার্থ ঘনিষ্ঠ৷ প্রতারণার অভিযোগে কোলাঘাটের তৃণমূল নেতা অতনু গুছাইতের স্ত্রী মানসী গুছাইতকে গ্রেফতার করল তমলুক থানার পুলিশ। এই ঘটনা জানাজানি হতেই শোরগোল বেঁধেছে৷ 

আরও পড়ুন- লেনদেন হতে পারে ৭ হাজার কোটির বেশি! আমির কাণ্ডে নয়া ধারণা

গত এপ্রিল মাসে গুছাইতদের বিরুদ্ধে আদালতের দ্বারস্থ হন তমলুকের বাসিন্দা বিকাশ বেরা৷ তাঁর অভিযোগ, অতনু গুছাইত, তার ভাই শান্তনু গুছাইত এবং অতনুর স্ত্রী মানসী গুছাইত দফায় দফায় তাঁর কাছ থেকে ৫০ লক্ষ টাকা নিয়েছেন। তাঁর কাছে বাড়ি বিক্রি করেছিলেন অতনুরা। কিন্তু অভিযোগ, বাড়ি বিক্রির পুরো টাকা মিটিয়ে দেওয়ার পরেও কিছুতেই বাড়ির রেজিষ্ট্রেশন করছিলেন না অতনু। পরবর্তীতে বিকাশ জানতে পারেন, ওই বাড়িটি আগে থেকেই সমবায় ব্যাঙ্কের কোলাঘাট শাখায় বন্ধক রয়েছে। এরপরই টাকা ফেরত দেওয়ার জন্য অতনুদের উপর চাপ দিতে থাকেন বিকাশ৷ তাঁকে মোট চারটি চেকে ৫০ লক্ষ টাকা ফেরতও দেন অতনু। কিন্তু সবকটি চেকই বাউন্স করে। এর পরেই আদালতের দ্বারস্থ হন তিনি৷ কিন্তু এই মানসী গুছাইত কে? 


মানসী হলেন অতনু গুছাইতের স্ত্রী৷ তিনি পাঁশকুড়ার একটি হাইস্কুলে ইতিহাস পড়ান৷ বরাবরই পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের ঘনিষ্ঠ বলে পরিচিত তিনি। শিক্ষা দফতরের বিষয়ে অনেক খবরও থাকত তাঁর কাছে৷ থানায় তাঁর বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের হতেই তাঁর বিরুদ্ধে পদক্ষেপ করা হয়৷ মঙ্গলবার স্কুলে আসার পরই তাঁকে গ্রেফতার করে তমলুক থানার পুলিশ৷ আর্থিক প্রতারণা, বিশ্বাসভঙ্গ–সহ একাধিক ধারায় মানসীর বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে। আজ, বুধবারই তাঁকে তমলুক আদালতে তোলা হবে বলে জানা গিয়েছে৷

From around the web

Education

Headlines