কলকাতা: দীর্ঘ লড়াই-আন্দোলন-ধর্না-মামলার ধকল কাটিয়ে অবশেষে প্রকাশিত হয়েছে উচ্চ প্রাথমিকে শিক্ষক নিয়োগের মেধা তালিকা৷ বোধন লগ্নে স্কুল সার্ভিস কমিশনের এই মেধা তালিকায় ভাগ্য খুলতে চলেছে প্রায় ১৫ হাজার চাকরিপ্রার্থীর৷ কিন্তু, মেধাতালিকা প্রকাশ হতে না হতেই চূড়ান্ত অসন্তোষ ছড়িয়েছে চাকরি প্রার্থীদের মধ্যে৷
মেধাতালিকায় বিষয় ভিত্তিক শূন্যপদের সংখ্যা উল্লেখ না থাকায় জারি ধোঁয়াশা৷ মেধাতালিকায় পরীক্ষার্থীদের নম্বার ইচ্ছাকৃতভাবে বাড়িয়ে দেওয়াও অভিযোগও তুলতে শুরু করেছেন চাকরিপ্রার্থীদের একাংশ৷ এই নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায়জুড়ে শুরু হয়েছে ঝড়৷

বিভিন্ন সোশ্যাল সাইটে চাকরিপ্রার্থীদের তরফে কমিশনকে বিরুদ্ধে সরসারি দুর্নীতির অভিযোগ তুলে সরব হতে শুরু করেছেন চাকরিপ্রার্থীদের একাংশ৷ ইন্টারভিউ দিয়েছেন, কিন্তু মেধা তালিকায় নাম না দেখে অনেকেই ক্ষোভ দেখিয়েছেন৷ কমিশনের প্রকাশিত মেধাতালিকা ঘিরে অনেকেই বলতে শুরু করেছেন, ‘‘কমিশনের মতে মোট শূন্যপদ ১৪৩৩৯টি৷ কিন্তু কোন বিষয়ে কত, কোন ক্যাটাগরিতে কত শূন্যপদ তা নিয়ে ধোঁয়াশা রয়েছে৷’’ অনেক চাকরিপ্রার্থীদের অভিযোগ, ‘‘আমার জানা অনেকের টেটের নম্বর অত্যধিক বাড়িয়ে দেওয়া হয়েছে৷ জানতাম, ১০৩ বা ১০৪৷ সেখানে তার স্কোর দেখাচ্ছে ১২০? এটা কীভাবে সম্ভব? মামলা করব৷’’ অবার অনেকে বলছেন, ‘‘এটা MERIT, PANEL নয়! TO BE OR NOT TO BE. এর খেলা এখনও শেষ হয়নি৷’’ কোনও কোনও চাকরিপ্রার্থীদের অভিযোগ, ‘‘নিজে দেখলাম ৩২ জনের টেট পরীক্ষার নম্বর বৃদ্ধি করা হয়েছে৷ সমস্ত প্রমাণ আছে৷’’

একধাপ এগিয়ে আবার কেউ বলছেন, ‘‘এই প্যানেল বাতিল করার জন্য যতদূর যেতে হয় যাব৷ ইন্টারভিউ ছাড়া স্কোর ছিল ৭৯.২১৷ অথচ কেস করা এক বন্ধু দেখছি, টেটে ৯৪ পেয়েছে৷ টেটের স্কোর করেছে ৩২.৬৭৷’’ কোনও কোনও চাকরিপ্রার্থী বলছেন, ‘‘চূড়ান্ত দুর্নীতি৷ কেস করে ডাক পাওয়ার টেট স্কোর ৩৪.৪০!’’ কোনও চাকরিপ্রার্থীর অভিযোগ, ‘‘১৬ তারিখ আদালত খুলবে৷ তার পর শুরু হবে আইনজীবীদের লাখ লাখ টাকা আয় করার অফুরন্ত অফার৷ কমিশন নিয়োগ চাই না৷ এটা প্রমাণিত৷’’ (সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করা বিভিন্ন চাকরিপ্রার্থীর মন্তব্যের ভিত্তিতে লেখা৷)

আজ দুপুরে কমিশনের ওয়েবসাইটে পূর্ণাঙ্গ তালিকা প্রকাশ করেছে স্কুল সার্ভিস কমিশন৷ সেখানে সিরিয়াল নম্বার উল্লেখ করে প্রার্থীদের নাম, তাঁদের রোল নম্বার, অ্যাক্যাডেমিক কোয়ালিফিকেশন, প্রফেশনাল কোয়ালিফিকেশন, টেট ও পার্সোনালিটি টেস্ট৷ সেখানে প্রার্থীর মোট নম্বর উল্লেখ করা হয়েছে৷ কোন প্রার্থী কত নম্বর পেয়েছেন তার পূর্ণাঙ্গ বিবরণ দেওয়া হয়েছে৷ (এই লিঙ্কে দেখুন মেধাতালিকা- wbcssc.co.in/meritview)

চতুর্থীর সন্ধ্যায় বিজ্ঞপ্তি জারি করে সার্ভিস কমিশনের তরফে জানানো হয়, শারীর শিক্ষা ও কর্ম শিক্ষার মেধাতালিকা বাদে উচ্চ প্রাথমিকে ২০১৬ সালের টেট পরীক্ষার ফলাফল আজ প্রকাশিত হবে৷ এছাড়াও সমস্ত ছুটির দিন আগামী ৫ থেকে ২৫ তারিখ পর্যন্ত সমস্ত ছুটির দিনেও মেধাতালিকা সংক্রান্ত কোনও অভিযোগ থাকলে তা স্কুল সার্ভিস কমিশনে জানানো যাবে৷

চলতি সপ্তাহের মধ্যে উচ্চ প্রাথমিকের মেধা তালিকার প্রাপ্ত নম্বর প্রকাশ করতে কমিশনকে নির্দেশ দিয়েছিল কলকাতা হাইকোর্টের বিচারপতি মৌসুমী ভট্টাচার্য৷ সেখানে তিনি সাফ নির্দেশ দিয়েছেন, মেধা তালিকায় টেটে প্রাপ্ত নম্বর, শিক্ষাগত যোগ্যতা, প্রফেশনাল কোয়ালিফিকেশন ও মৌখিক পরীক্ষায় কোন প্রার্থী কত নম্বার পেয়েছে, তার তালিকাও তুলে ধরতে হবে৷ এই চার বিভাগে নম্বরের যোগফল উল্লেখ করতে বলা হয়েছে কমিশনকে৷ এমনকি আদালতের নির্দেশ অনুযায়ী এই নিয়োগ প্রক্রিয়া করতেও নির্দেশ দিয়েছে কলকাতা হাইকোর্ট৷ আগামী নভেম্বর মাসের প্রথম সপ্তাহে মামলার পরবর্তী শুনানির দিন ধার্য করেছে৷ কলকাতা হাইকোর্টের নির্দেশের ৪৮ ঘণ্টা পর এবার বিজ্ঞপ্তি জারি করে মেধাতালিকা প্রকাশ করল কমিশন৷

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here