vote-for-me-or-else-what-bjps-maneka-gandhi

কলকাতা: পুজো মিটেছে৷ ধীরে ধীরে স্বাভাবিক হচ্ছে জনজীবন৷ রবিবার লক্ষ্মীপুজো৷ সোমবার থেকে ফের শুরু হবে বাঙালির কর্মব্যস্ততা৷ উৎসবের রেশ কাটিয়ে জনজীবন স্বাভাবিক ছন্দে ফিরতে না ফিরতেই এবার ঘর গোছানোর প্রস্তুতি শুরু করল বিজেপি৷

আগামী ২০২১-এর রাজ্যের বিধানসভা নির্বাচনকে মাথায় রেখে গেরুয়া বাহিনীকে ফের চাঙ্গা করতে চাইছেন মোদি-অমিত শাহরা৷ সৌজন্যে বাংলা নেতাদের প্রতিনিয়ত প্রশিক্ষণ দেওয়ার ব্যবস্থা৷ প্রশিক্ষণের জন্য কেন্দ্রীয় নেতাদের মাঝে মধ্যেই বাংলায় পাঠানোর প্রস্তুতি শুরু করেছেন অমিত শাহ৷

২০২১ সালের রাজ্য বিধানসভা নির্বাচন রয়েছে৷ ২৯৪টি বিধানসভা কেন্দ্রে নেওয়া হবে ভোট৷ গত বিধানসভা নির্বাচনে বিপুল জনসমর্থন নিয়ে তৃণমূল ক্ষমতা দখল করেছে৷ তবে গত লোকসভা নির্বাচনের ফলাফল রাজ্য বিধানসভার কেন্দ্রগুলিতে বিরাট পরিবর্তন লক্ষ্য করা গিয়েছে৷ বাংলা থেকে শুধুমাত্র ১৮টি লোকসভা কেন্দ্রে বিজেপি ছিনিয়ে নিয়েছে৷ রাজ্যের অধিকাংশ বিধানসভায় এগিয়ে বিজেপি৷ লোকসভা নির্বাচনে যেসব বিধানসভায় বিজেপি এগিয়ে রয়েছে, সেখানে দলীয় সংগঠন সক্রিয় করে তুলতে চাইছে কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব৷

রাজ্য বিজেপির এক নেতা জানিয়েছেন, লোকসভা নির্বাচনে যে বিধানসভায় বিজেপি এগিয়ে রয়েছে, সেগুলি ধরে রাখতে হবে৷ সেই জন্য দলীয় নেতাকর্মীদের আরও সক্রিয় করে তোলা হচ্ছে৷ সেজন্য স্থানীয় নেতাকর্মীদের প্রশিক্ষণ দেওয়ার উদ্যোগ নিতে চলেছে দল৷ এগিয়ে থাকা বিধানসভা কেন্দ্রগুলি এই প্রশিক্ষণ দেওয়ার ব্যবস্থা শুরু হচ্ছে৷ সেখানে কেন্দ্রীয় নেতাদের হাজির থাকতে নির্দেশ দেওয়া হচ্ছে৷ এই প্রশিক্ষণ শিবিরে দলীয় কর্মীদের এনআরসি ও নাগরিকত্ব সংশোধনী বিলের পাঠ দেওয়া হবে বলে বিজেপি সূত্রে খবর৷

পুজোয় উদ্বোধনে এসে বিধানসভা নির্বাচনের ব্লু প্রিন্ট তৈরি করে দিয়েছেন সর্বভারতীয় সভাপতি তথা স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ৷ আর সেই ভিত্তিতে প্রচারে নামতে চলেছে গেরুয়া শিবির৷ আগামী বিধানসভা নির্বাচনে প্রচারে বিজেপি হাতিয়ার নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল ও রাজ্যর আইনি ব্যবস্থা৷

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here