Manmohan Singh not as strong as Narendra Modi, says Sheila Dikshit

নয়াদিল্লি: সংবাদ মাধ্যম আমার বক্তব্যকে বিকৃত করেছে। পুলওয়ামায় জঙ্গিহানা প্রসঙ্গে মুখ খুলে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে শক্তিশালী বলেছিলেন দিল্লির প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী শিলা দিক্ষীত।মূলত পুলওয়ামার ঘটনায় একসঙ্গে এতজন জওয়ানের শহিদ হওয়ার পর কেন্দ্রের এয়ার স্ট্রাইকের প্রসঙ্গে শ্রীমতি দিক্ষীতকে নাড়া দিয়েছিল। এক একান্ত সাক্ষাৎকারে যখন বিষয়টি ওঠে তখন অনিবার্যভাবেই প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী ডক্টর মনমোহন সিংয়ের প্রসঙ্গও আসে। তখনই শ্রীমতি দিক্ষীত বলেন, মনমোহন সিংয়ের থেকে অনেক বেশি মানসিক শক্তি রাখেন নরেন্দ্র মোদি। তবে মোদির এই কাজ পুরোটাই রাজনৈতিক স্বার্থ চরিতার্থ করার জন্য। যদিও তাঁর মুখ থেকে ততক্ষণে কথা বেরিয়ে গিয়েছে, এয়ার স্ট্রাইক প্রসঙ্গে মোদির গুণগান গাইতে গিয়ে তিনি যে মনমোহনের সমালোচনা করে ফেলেছেন, এবং বিষয়টি নিয়ে চাপানউতোরও শুরু হয়ে গিয়েছে।

এরপরেই একটি টুইটে তিনি বলেন জাতীয় নিরাপত্তা নিয়ে বরাবরই সচেতন ছিলেন প্রধানমন্ত্রী ইন্দিরা গান্ধী। তিনি নিজেও একজন শক্তিশালী নেত্রী। জাতীয় নিরাপত্তা প্রসঙ্গে তিনি ঠিক কি বলতে চান স্পষ্ট করে বলুন, তখনই শিলা দিক্ষীত বলেন, যদি আমি বিষয়বস্তুর বাইরে গিয়ে কিছু বলে ফেলি, তাহলে তা বলতেই চাইনি। এরপরেই টুইট করে ক্ষোভ প্রকাশ করেন তিনি। টুইটে জানিয়েছেন, মোদি জঙ্গি নাশকতার রুখতে কঠোর ভূমিকা নেন তবে সবটাই ভোটবাক্সের চমকের জন্য। তার বেশি কিছু নয়, এমনই বলেছিলাম। কিন্তচু কিছু লোক আমার বক্তব্যের ভুল ব্যাখ্যা করেছেন।

বালাকোটে বায়ুসেনার হানার ঘটনা প্রসঙ্গে শিলা দিক্ষীত বলেছিলেন, জঙ্গি হানার পর প্রতিপক্ষকে জবাব দিতে মোদি দেরি করেননি। একইভাবে ২০০৮ সালে যখন মুম্বই হামাল হল তখন কিন্তু ইউপিএ সরকারের তরফে কোনও প্রত্যুত্তোর দেওয়া হয়নি। সেখানে মোদি যথাযথ জবাব দিয়েছেন। দেশের মানুষ তাঁকে কঠোর মানসিকতার অধিকারী হিসেবেই দেখছে।

Loading...
Loading...

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here