Unemployment down by 40 per cent, Utkarsh Bangla showing the way: Bangla CM

কলকাতা: আগের তুলনায় পশ্চিমবঙ্গে বেকারত্ব ৪০ শতাংশ কমেছে। বিধানসভায় প্রশ্নোত্তর পর্বে দাবি করেছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। ১০০ দিনের কাজ, ক্ষুদ্র-কুটির শিল্প সহ নানা ক্ষেত্রে কাজের সুযোগ বেড়েছে। আগে সঠিক কর্মসংস্থানের উপযুক্ত প্রশিক্ষণের সুযোগ ছিল না। নিয়োগ কর্তাদের চাহিদার সঙ্গে সঙ্গতি রেখে অত্যাধুনিক প্রশিক্ষণ দেওয়ার ব্যবস্থা করেছে রাজ্য সরকার।

মুখ্যমন্ত্রী ঘোষণা করেন, আগামী দু’বছরে ১২ লক্ষ ছেলেমেয়ের চাকরি হবে। বিধানসভায় হাজির রাজ্যের কারিগরি শিক্ষামন্ত্রী বলেন, ছেলেমেয়েদের দক্ষতা বাড়াতে উৎকর্ষ বাংলা প্রকল্প চালু হয়েছে। সেখানে তিন মাসে রাজ্যের ১ লক্ষ ৫৭ হাজার প্রার্থী নিজেদের নাম নথিভুক্ত করেছে। পাশাপাশি ৪০০’রও বেশী সংস্থা সংশ্লিষ্ট প্রার্থীদের উপযুক্ত প্রশিক্ষণ দিতে সম্মত হয়েছে।
কারিগরি শিক্ষামন্ত্রী এদিন ঘোষণা করেন, পশ্চিমবঙ্গ স্কিল ডেভেলপমেন্ট সোসাইটির অধীনে বেসরকারি প্রশিক্ষণ সংস্থার মাধ্যমে যেসব গরিব ছেলেমেয়ে প্রশিক্ষণ নেবে, তাদের টিফিন বাবদ দৈনিক ৫০ টাকা দেবে রাজ্য সরকার। কারণ এই প্রতিষ্ঠানগুলিতে মূলত আর্থিকভাবে পিছিয়ে থাকা পরিবারের ছেলেমেয়েরা ভর্তি হয়। তাই তাদের আকর্ষণ বাড়াতে সামান্য টিফিন খরচের ব্যবস্থা করেছে রাজ্য সরকার। কারিগরি শিক্ষামন্ত্রী আরও বলেন, কারিগরি ক্ষেত্রে প্রশিক্ষণের জন্য প্রতিষ্ঠানগুলিতে দিনে ছ’ঘণ্টা করে সময় বাঁধা থাকে। কিন্তু সেখানে বহু ছেলেমেয়ে কৃষক পরিবার থেকে আসে। অনেক ক্ষেত্রে তারা দিনে এতটা সময় দিতে পারে না। এই সমস্যার কথা মাথায় রেখেই প্রশিক্ষণের নির্দিষ্ট সময় অপরিবর্তিত রেখে দৈনিক প্রশিক্ষণের সময়সীমা কমিয়ে দু’ঘণ্টা করার বিষয়ে ভাবনাচিন্তা করা হচ্ছে। এক্ষেত্রে পুরো কোর্স শেষ করার ক্ষেত্রে বাড়তি সময় লাগলেও প্রতিদিনের দীর্ঘ সময় আটকে থাকার সমস্যা মিটবে বলে আশাবাদী কারিগরি শিক্ষামন্ত্রী।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here